বিজ্ঞপ্তি:
দৈনিক শাহনামার অনলাইন ভার্সনে আপনাকে স্বাগতম। জাতীয়, রাজনীতি, খেলাধুলা, বিনোদন সহ সকল সংবাদের সর্বশেষ আপডেট জানতে ভিজিট করুন www.shahnamabd.com
সংবাদ শিরোনাম :
৪১.৩ ডিগ্রি তাপমাত্রা চুয়াডাঙ্গায় রোনালদোকে ৯.৭ মিলিয়ন ইউরো ক্ষতিপূরণ দিচ্ছে জুভেন্টাস জাতীয় গ্রিডে গ্যাস দিতে ৪৮টি কূপ খনন করতে চায় পেট্রোবাংলা ‘যারা নুন-ভাতের কথাও ভাবতে পারত না, তারা এখন মাছ-মাংসের চিন্তা করে’ আমিরাতে বৃষ্টিতে গাড়িতে আটকা পড়ে মারা গেলেন দুই জন কৃষির উন্নয়নে সমবায় পদ্ধতি চালু করা উচিত : প্রধানমন্ত্রী স্বর্ণের দামে নতুন রেকর্ড, ভরিপ্রতি বাড়ল ২০৬৫ টাকা দেশের বাজারে রেকর্ড স্বর্ণের দাম সিনেমা-টিভি খাতে বাংলাদেশ-ভারতের মধ্যে অভিজ্ঞতা বিনিময় করা হবে : তথ্য প্রতিমন্ত্রী প্রাণিসম্পদ সেবা সপ্তাহ ও প্রদর্শনী ২০২৪ এর উদ্বোধন করেছেন প্রধানমন্ত্রী

খুলনায় জুট মিলে ভয়াবহ আগুন, নিয়ন্ত্রণে ১১ ইউনিট

খুলনায় জুট মিলে ভয়াবহ আগুন, নিয়ন্ত্রণে ১১ ইউনিট

ডেস্ক রিপোর্ট :
খুলনার রূপসা উপজেলার জাবুসায় খুলনা-মোংলা মহাসড়কের পাশে একটি জুট মিলে ভয়াবহ আগুন লেগেছে। আগুন নিয়ন্ত্রণে ফায়ার সার্ভিসের ১১টি ইউনিট কাজ করছে। আজ বুধবার (৩ এপ্রিল) বিকেল সাড়ে ৫টার দিকে উপজেলার ৩ নম্বর নৈহাটি ইউনিয়নের জাবুসা চৌরাস্তাসংলগ্ন সালাম জুট মিলে এ ঘটনা ঘটে।

মুহূর্তের মধ্যে আগুনের লেলিহান শিখা পার্শ্ববর্তী দুটি গুদামে ছড়িয়ে পড়ে। এসময় গুদামে কর্মরত শ্রমিকরা ভয়ে গুদাম থেকে বেরিয়ে আসে।

কয়েকজন প্রত্যক্ষদর্শী জানান, প্রথমে পাটকলের ৩ নম্বর গুদামে আগুন লাগে। শুকনো পাট হওয়ায় দ্রুত আগুন কারখানায় সবখানে ছড়িয়ে পড়ে। এ জন্য আগুন নেভাতে ফায়ার সার্ভিসের কর্মীদের বেগ পেতে হচ্ছে। তাৎক্ষণিকভাবে অগ্নিকাণ্ডে হতাহতের খবর পাওয়া যায়নি। এই রিপোর্ট (রাত সাড়ে ৯টা) লেখা পর্যন্ত আগুন জ্বলছে।

দুর্ঘটনার বিপরীতে বিমা রয়েছে দাবি করে মিলের মালিক আব্দুস সালাম জানান, আগুনে তাঁর প্রায় শত কোটি টাকার ওপরে পাট ও যন্ত্রপাতির ক্ষতি হয়েছে। তিনটি গুদামে ৭৫০ টন উৎপাদিত পণ্য ছিল। তবে হতাহতের কোন খবর পাওয়া যায়নি

জনতা ব্যাংক পিএলসির খুলনা শাখার এজিএম জানান, এই মিলের যন্ত্রপাতির বিপরীতে তাদের এখনও ৩০-৪০ কোটি টাকার বিনিয়োগ আছে।

পাটকলটির ম্যানেজার বশির আহম্মেদ জানান, ৩ নং গুদামে অবস্থিত একটি মেশিনে যান্ত্রিক ত্রুটির কারণে শর্টসার্কিট হয়ে অগ্নিকাণ্ড ঘটে। অল্প সময়ের মধ্যে ১ নং এবং ২ নং গুদামেও অগ্নিকাণ্ড ছড়িয়ে পড়ে।

খুলনা ফায়ার সার্ভিসের সহকারী পরিচালক মো. ফারুক হোসেন সিকদার রাত ৯টার দিকে এনটিভিকে বলেন, আগুনের খবর পেয়ে খুলনা সদর, খালিশপুর, দৌলতপুর, রূপসা, ফকিরহাট ও বটিয়াঘাটার মোট ১১টি ইউনিট আগুন নিয়ন্ত্রণে কাজ করছে। নৌ-বাহিনীর দুটি ইউনিট আমাদের সঙ্গে যুক্ত হয়েছে। আগুন মোটামুটি নিয়ন্ত্রণে চলে এসেছে। যেহেতু পাটের গুদামে আগুন লেগেছে, তাই পুরোপুরি নিয়ন্ত্রণে আসতে আরও কয়েক ঘণ্টা সময় লাগবে। সামনে ও পেছনে দুটি গুদাম আমরা রক্ষা করতে পেরেছি। তবে আগুন লাগার কারণ ও ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ জানা যায়নি।

Please Share This Post in Your Social Media




All rights reserved by Daily Shahnama
কারিগরি সহায়তা: Next Tech